সংবাদ শিরোনামঃ

সেন্ট মার্টিনে ৬ শতাধিক পর্যটক আটকা

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপের প্রভাবে কক্সবাজারের সমুদ্র উপকূল উত্তাল রয়েছে। এ কারণে টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন পথে জাহাজ ও ট্রলার চলাচল বন্ধ রয়েছে। এতে সেন্ট মার্টিনে ছয় শতাধিক পর্যটক আটকা পড়েছেন।

আটকে পড়া পর্যটকেরা হোটেল ও কটেজে অবস্থান করছেন। সমুদ্র শান্ত হলে টেকনাফ থেকে ট্রলার নিয়ে গিয়ে তাঁদের ফিরিয়ে আনা হবে।

সেন্ট মার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ২ নম্বর ওয়ার্ড ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্য হাবিব খান বলেন, নিম্নচাপের প্রভাবে সাগর প্রচণ্ড উত্তাল রয়েছে। গত বুধবার রাতে একটি ট্রলার সেন্ট মার্টিন জেটিঘাটে নোঙর করা অবস্থায় ডুবে গেছে। আজ বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত ট্রলারটির সন্ধান মেলেনি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম প্রথম আলোকে বলেন, নিম্নচাপের কারণে বঙ্গোপসাগরের উপকূলে ৪ নম্বর সতর্কসংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। এ কারণে গত বুধবার বিকেল থেকে টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন পথে সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে। এতে বুধবার দুপুরে সেন্ট মার্টিনে যাওয়া ছয় শতাধিক পর্যটক আটকা পড়েছেন। তাঁদের খোঁজখবর রাখার জন্য পুলিশ, বিজিবি ও কোস্টগার্ড এবং ইউপি সদস্যদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

সতর্কসংকেত নামিয়ে নেওয়া হলে নৌযান চলাচল শুরু হবে। তখন আটকে পড়া পর্যটকদের টেকনাফ ফিরিয়ে আনা হবে।

সৈয়দ আলম, টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন নৌপথের সার্ভিস বোট মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক

সেন্ট মার্টিন ইউপির প্যানেল চেয়ারম্যান আবদুর রউফ বলেন, আটকে পড়া পর্যটকেরা দ্বীপের বিভিন্ন হোটেল ও কটেজে আছেন। আজ সারা দিন থেমে থেমে বৃষ্টিপাত হয়েছে। সবাই সুস্থ আছেন।

জানতে চাইলে টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন নৌপথের সার্ভিস বোট মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আলম বলেন, সতর্কতা সংকেত নামিয়ে নেওয়া হলে নৌযান চলাচল শুরু হবে। তখন আটকে পড়া পর্যটকদের টেকনাফ ফিরিয়ে আনা হবে।

About Jisan Ali

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*