সংবাদ শিরোনামঃ

চট্টগ্রাম অক্সিজেনের রাজা লেদু গুন্ডা, তার সহযোগী মোবাইল চোর মাজেদের অপকর্ম: পর্ব-০১

স্বনামধন্য আইপিটিভি সিটিজি ক্রাইম টিভির চট্টগ্রাম অফিসের ২৫ লক্ষ টাকার মালামাল লুট করে অভিনয় ভিডিও তৈরি করে প্রতারণা করেছে ও কথিত মোবাইল চোর দেশযোগ ফেইসবুক মাজেদুল চট্টগ্রামের অন্ধ জগতের গডফাদার আবদুন্নবী লেদু। এ বিষয়ে সিটিজি ক্রাইম টিভির চেয়ারম্যান আজগর আলী মানিক আইসিটি মামলা করেছেন। তথ্য প্রযুক্তি আইনে তাদের বিরুদ্ধে আরো লুট মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন তিনি।লক্ষ টাকার ক্ষতিপূরণ দেওয়ার ভয়ে তিনি পাগল হয়ে উল্টা পাল্টা বক্তব্য দিচ্ছে বলে মন্তব্য করেন সিটিজি ক্রাইম টিভি চ্যানেল এর চেয়ারম্যান আজগর আলী মানিক এবং যে নুরুল আফসার এর বক্তব্য দিয়েছেন, সব বক্তব্য ভিত্তিহীন বানোয়াট। তার বক্তব্য রেকর্ট প্রকাশ করছি… উল্লেখ্য, সিটিজি ক্রাইম টিভির চট্টগ্রাম এর অফিস ভাড়া ক্লিয়ার আছে। তার কাছ থেকে কোন টাকা পয়সার নেয় নাই আজগর আলী মানিক। এই ধরনের কোন প্রমান নেই। তার অফিস থেকে ৫ টি চেক এবং দুইটি স্টাম্প এ জোর করে স্বাক্ষর নিয়েছে তারা।এগুলি প্রমাণ করার জন্য তিনি কোটে মামলা করেছেন সিটিজি ক্রাইম টিভির চেয়ারম্যান আজগর আলী মানিক।এর আগেও বিভিন্ন অনলাইনে এবং জাতীয় পত্রিকা গুলিতে নিউজ হয়েছে এই লেদু আর মোবাইল চোর ও প্রতারক মাজেদুলের বিরুদ্ধে। চাাঁদাবাজ, প্রতারক, মোবাইল চোর, নারী ক্যালেঙ্কারীতে লিপ্ত মাজেদুলের বিরুদ্ধে এর আগেও অনেক ভুক্তভোগী নারীরা অভিযোগ করেছে। আর অনেক মিডিয়ায় এই মাজেদুলের বিরুদ্ধে ও দেশযোগ ফেসবুক পেজের বিরুদ্ধে বহুবার সংবাদও প্রচারিত হয়েছে। এখন সিটিজি ক্রাইম টিভি চেয়ারম্যান আজগর আলী মানিকের সুনাম নষ্ট করার জন্য চক্রান্ত করে, নানা কৌশলে বিভিন্ন ভিডিও কেটে এডিট করে মানহানীকর খবর প্রচার করে আসছে এই অসাধু মাজেদুল ও তার সহযোগী। সম্মানহানীকর এ সকল ভিডিও অপপ্রচার করে হাতিয়ে নিতে চাইছে লক্ষ লক্ষ টাকা। অভিযোগ আছে, এর আগেও মাজেদুল তার দেশযোগ ফেসবুক পেজের আড়ালে বিভিন্ন অনৈতিক কাজ করে সাধারণ ব্যবসায়ী ও বিত্তবানদেরকে ব্ল্যাকমেইলিংয়ের মাধ্যমে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এবার উঠেপড়ে লেগেছে আজগর আলী মানিকর বিরুদ্ধে। তার কাছ থেকে হাতিয়ে নিতে চাইছে মাজেদুলের সকল কুকীর্তির নথি আর আদায় করতে চাইছে মোটা অঙ্কের চাঁদা। এ সকল বিষয়ে ভুক্তভোগী হয়ে এবং সম্মানহানীকর অপপ্রচারমূলক খবর প্রচার করে আজগর আলী মানিকের সম্মান ক্ষুন্ন করার অপপ্রচার চালিয়ে আসছে এই মাজেদুল। মাজেদুল একজন ইয়াবা ব্যবসায়ী। এসব তথ্য সিটিজি ক্রাইম টিভিতে নিউজ হওয়াতে ক্ষিপ্ত হয়ে মাজেদুল প্রতিশোধ পরায়ন হয়ে আজগর আলী মানিক এর সম্মান নষ্ট করার পচেষ্টা চালাচ্ছে। এ বিষয়ে সিটিজি ক্রাইম টিভি চেয়ারম্যান আজগর আলী মানিক বলেন, আমার বিরুদ্ধে এসব তথ্য মিথ্যা ও বানোয়াট। মাজেদুলের কাছে কোন সঠিক তথ্য নাই। আর আমার ও প্রতিষ্ঠানের সম্মান নষ্ট করতে মাজেদুল উঠেপড়ে লেগেছে। এমতাবস্থায় আমি এর আগেও আইসিটি ও মানহানী মামলা করেছি একাধিক কোর্টে। যে সকল মামলা এখনও চলমান রয়েছে। লেদু গুন্ডা। এই লেদু গুন্ডার কোনও ব্যবসা বাণিজ্য নাই। সে হচ্ছে চট্টগ্রাম অক্সিজেনের রাজা। নারীর রাজা, চাঁদাবাজীর রাজা। সব কিছুর রাজা মূল হচ্ছে এই লেদু গুন্ডা। এবং তার অপকর্ম ধামাচাপা দেওয়ার জন্য মাসোহারা চাঁদা দিয়ে যাচ্ছে বিভিন্ন মহলে, তাকে না ধরার জন্য। এবং তিনি চট্টগ্রামের অন্ধ জগতের গডফাদার হিসেবে পরিচিত। তার বিল্ডিং রয়েছে। শত শত কোটি টাকার মালিক হয়েছে। দুদক তদন্ত করতে আসলে এক শ্রেণীর লোকদেরকে টাকা দিয়ে তদন্ত কাজ ধামাচাপা দিয়ে রাখার ব্যবস্থা করে টাকার জোরে। এই অবৈধ টাকা আর এত অবৈধ ব্যবসার কুমীর লেদু গুন্ডাকে ধরতে প্রশাসন নিরব কেন? লেদু গুন্ডা এক সময় জাতীয় পার্টি করত নিজে রক্ষা করার জন্য এখন আওয়ামী লীগ করে। রাত এগারোটার পর জুয়ার আড্ডার মধ্যে বসে। তার এমন কোন কাজ নাই, করে না। নারী দর্শন মানুষ নির্যাতন জায়গা দখল সেটার জন্য খালি জায়গা দখল করে অষ্টম তলা ভবন তৈরি ভবনের নাম হাজী ভবন তার রয়েছে কোটি কোটি টাকার সম্পদ। জিরো থেকে হিরো। এক সময় রাস্তায় চা আর পান বিক্রি করতো। এখন কোটি কোটি টাকার মালিক। তাকে একসময় সেনাবাহিনী নিয়ে গেছিল প্রাণভিক্ষায় বেঁচে যায়। এখন তিনি গোয়েন্দা সংস্থার নজরে রয়েছে। পুলিশের নজরে রয়েছে যেকোন সময় গ্রেফতার হতে পারে। সিটিজি ক্রাইম টিভি চেয়ারম্যান আজগর আলি মানিক এর মালামাল লুট করে তার অফিসে থাকা পাঁচটি চেক দুটি ষ্টাম্প জোর করে নিয়ে যায়।এবং তার বিরুদ্ধে নারী গঠিত, জায়গা জমি মামলা রয়েছে বলে একাধিক সূত্রে জানা যায়। এবং শত শত অসহায় পরিবার তার কাছে জিম্মি রয়েছে রোফাবাদ এলাকায় আজকে হুমকি-ধমকি দিয়ে। চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করে। তার পক্ষে কেউ মানববন্ধনের যাওয়া না যাওয়ার জন্য চাইলে তাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। এবং তার অফিসের কিছু গোপন ভিডিও শক্ত প্রমান সহ আমাদের কাছে রয়েছে। দ্বিতীয় পর্ব তে আসবে ইনশাল্লাহ।

About Jisan Ali

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*