সংবাদ শিরোনামঃ

গাজীপুরে স্ত্রী-ছাত্র খুনের ঘটনায় মাদরাসার শিক্ষক রিমান্ডে

গাজীপুরে মাদরাসায় জোড়া খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত মাদরাসার পরিচালক, শিক্ষক ইব্রাহিম খলিলের তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) আমিনুর রহমান বলেন, ২০ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার সকালে মাদরাসার শিক্ষক ইব্রাহিম খলিলকে গাজীপুরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ও ভারপ্রাপ্ত মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ ইলিয়াস রহমানের আদালতে হাজির করা হয়। আদালতে সাতদিনের রিমান্ড আবেদন করা হলে শুনানি শেষে তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

বাসন থানা পুলিশের ওসি মুক্তার হোসেন জানান, গ্রেফতারকৃত প্রধান আসামি ইব্রাহিম খলিলকে রিমান্ডে নিয়ে এ হত্যাকান্ডের ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। জোড়াখুনের প্রকৃত ঘটনা উদঘাটন করা হবে। হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটনে তদন্ত কাজ চালিয়ে যাচ্ছে পুলিশ।

এদিকে, গাজীপুর মহানগরীর চান্দনা এলাকায় হুফফাজুল কোরআন মাদরাসায় নিজের স্ত্রী মাহমুদা আক্তার ও ছাত্র মামুনকে খুনের ঘটনায় বুধবার বাসন থানায় মামলা করেন নিহত মাহমুদার বাবা মোঃ হানিফ গাজী। মামলায় ইব্রাহিম খলিলকে প্রধান আসামি ও অজ্ঞাত ৩-৪ জনকে আসামি করা হয়।

উল্লেখ্য, ২৮ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার ভোরে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের চান্দনা পূর্ব পাড়া এলাকায় হুফফাজুল কোরআন মাদরাসার ভেতরে মাদরাসার পরিচালক, শিক্ষক ইব্রাহিম খলিলের স্ত্রী মাহমুদা আক্তার স্মৃতি (২৫) ও ছাত্র মামুনকে (৮) কুপিয়ে হত্যা করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। এ হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে মাদরাসার শিক্ষক ইব্রাহিম খলিলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গ্রেফতার করে পুলিশ। এ ঘটনায় বুধবার মামলা হলে ইব্রাহিম খলিলকে গ্রেফতার দেখিয়ে বৃহস্পতিবার আদালতে হাজির করে পুলিশ।

About Jisan Ali

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*